নামকরণ প্রহাসিনী কবিতা | namkoron kobita | প্রহাসিনী কাব্যগ্রন্থ | রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর

নামকরণ প্রহাসিনী কবিতাটি [ namkoron kobita ] কবিগুরু রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর এর প্রহাসিনী কাব্যগ্রন্থের অংশ।

নামকরণ

রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর

কাব্যগ্রন্থের নামঃ প্রহাসিনী

কবিতার নামঃ নামকরণ

 

নামকরণ প্রহাসিনী কবিতা | namkoron kobita | প্রহাসিনী কাব্যগ্রন্থ | রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর
রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর [ Rabindranath Tagore ]

নামকরণ প্রহাসিনী কবিতা | namkoron kobita | প্রহাসিনী কাব্যগ্রন্থ | রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর

দেয়ালের ঘেরে যারা

গৃহকে করেছে কারা,

           ঘর হতে আঙিনা বিদেশ,

গুরুভজা বাঁধা বুলি

যাদের পরায় ঠুলি,

           মেনে চলে ব্যর্থ নিদেশ,

যাহা কিছু আজগুবি

বিশ্বাস করে খুবই,

           সত্য যাদের কাছে হেঁয়ালি,

সামান্য ছুতোনাতা

সকলই পাথরে গাঁথা,

           তাহাদেরই বলা চলে দেয়ালি।

আলো যার মিট্‌মিটে,

স্বভাবটা খিট্‌খিটে,

           বড়োকে করিতে চায় ছোটো,

সব ছবি ভুষো মেজে

কালো ক’রে নিজেকে যে

           মনে করে ওস্তাদ পোটো,

বিধাতার অভিশাপে

ঘুরে মরে ঝোপে-ঝাপে

           স্বভাবটা যার বদখেয়ালি,

খ্যাঁক্‌ খ্যাঁক্‌ করে মিছে,

সব-তাতে দাঁত খিঁচে,

           তারে নাম দিব খ্যাঁক্‌শেয়ালি।

 

নামকরণ প্রহাসিনী কবিতা | namkoron kobita | প্রহাসিনী কাব্যগ্রন্থ | রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর
রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর [ Rabindranath Tagore ]

দিনখাটুনির শেষে

বৈকালে ঘরে এসে

           আরাম-কেদারা যদি মেলে–

গল্পটি মনগড়া,

কিছু বা কবিতা পড়া,

           সময়টা যায় হেসে খেলে–

দিয়ে জুঁই বেল জবা

সাজানো সুহৃদসভা,

           আলাপ-প্রলাপ চলে দেদারই–

ঠিক সুরে তার বাঁধা,

মূলতানে তান সাধা,

           নাম দিতে পারি তবে কেদারি।

আরও দেখুনঃ

Amar Rabindranath Logo

মন্তব্য করুন